SVMCM Scholarship Rejected: বাতিল আবেদন, স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপে নতুন আপডেট! অবশ্যই দেখো

SVMCM Application Rejected 2024 Solution

স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপে আবেদনের সময় এই ভুলগুলি করলে টাকা পাবে না (SVMCM Scholarship Rejected)! বিকাশ ভবনের তরফ থেকে অনেকেরই আবেদন বাতিল করা হচ্ছে! রাজ্যের পড়ুয়াদের কাছে সবচেয়ে জনপ্রিয় স্কলারশিপ হল স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপ। নূন্যতম ৬০ শতাংশ নাম্বার থাকলে ছাত্র-ছাত্রীরা এই স্কলারশিপে আবেদন করতে পারে এই স্কলারশিপে আবেদন করলে ছাত্রছাত্রীরা বার্ষিক ১২,০০০ টাকা থেকে ৬০,০০০ টাকা পর্যন্ত পেতে পারে। কিন্তু এই স্কলারশিপে আবেদন করার সময় এমন কিছু ভুল রয়েছে যে ভুলগুলি করলে ছাত্র-ছাত্রীরা এই স্কলারশিপ থেকে কোন টাকা পাবে না

   
স্কলারশিপের নামস্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপ (SVMCM)
যোগ্য পড়ুয়ামাধ্যমিক এবং উচ্চ মাধ্যমিক পাস
প্রয়োজনীয় নাম্বার৬০ শতাংশ
স্ট্যাটাস চেক করুনCheck Scholarship Status
আপডেটSVMCM Scholarship Rejected

যেসকল ছাত্র-ছাত্রী স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপ সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে চাওয়া এবং স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপে সরাসরি আবেদন করতে চাও তাহলে স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপের আবেদনের ডাইরেক্ট লিংক » Apply SVMCM SCHOLARSHIP

আবেদন করার সময় কোন ভুলগুলি করলে স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপ পাবে না

যে সকল ছাত্র-ছাত্রী ২০২৩-‘২৪ শিক্ষাবর্ষে স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপে আবেদন করতে চলেছ তোমরা আবেদন করার সময় যদি নিম্নলিখিত ভুলগুলো করো, তাহলে স্কলারশিপের টাকা পাওয়া থেকে বঞ্চিত থাকবে। তাই অবশ্যই দেখে নাও কোন ভুলগুলি করলে স্কলারশিপের টাকা পাবে না।

(১) স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপে আবেদন করার সময় ডকুমেন্ট আপলোড প্রক্রিয়ায় অনেক সময় ছাত্রছাত্রীরা মাধ্যমিক অথবা উচ্চমাধ্যমিকে মার্কসিট আপলোডের সময় মার্কসিটের শুধুমাত্র একটা সাইড স্ক্যান করে আপলোড করে। কিন্তু ওয়েবসাইটে স্পষ্টভাবে বলা রয়েছে যে মার্কসিট বোথ সাইড অর্থাৎ মার্কসিটের দুই দিকেই স্ক্যান করে আপলোড করতে হবে।

(২) অনলাইনে বিডিও ইনকাম করার ক্ষেত্রে অনেক সময় বিডিও তারা অনলাইন ভেরিফিকেশন কমপ্লিট হয় না। এবং অনলাইন ভিডিও ইনকামের উপর একটি জিজ্ঞাসা চিহ্ন থাকে সেক্ষেত্রে ওই ইনকাম সার্টিফিকেটটি যদি আবেদন করার সময় আপলোড করো তাহলে সেক্ষেত্রে স্কলারশিপ পাবেনা।

(৩) অনেক সময় ব্যাংক অ্যাকাউন্টের তথ্য আপলোড করার সময় একাউন্টের প্রথম পাতা ঝাপসা দেখা যায়। সেক্ষেত্রে একাউন্ট নম্বর ভালোভাবে বোঝা যায় না। এক্ষেত্রেও টাকা পেতে অসুবিধা হতে পারে।

(৪) ছাত্র-ছাত্রীরা অনেক সময় এমন মোবাইল নাম্বার এবং ইমেল আইডি দেয় যেটি কয়েকদিন ব্যবহারের পর সেটি আর ব্যবহার করে না। কিন্তু এক্ষেত্রে মনে রাখবে রেনুয়াল করার সময় ওই মোবাইল নাম্বার এবং ইমেল আইডি জরুরী তাই তুমি যতদিন টাকা পাবে ততদিন একই মোবাইল নাম্বার এবং ইমেইল আইডি দেবে। এবং মোবাইল নাম্বারটি অবশ্যই সর্বদাচালু থাকতে হবে। কারণ তোমার মোবাইল নাম্বারে স্কলারশিপের স্ট্যাটাস এবং সমস্ত কিছু মেসেজ দেওয়া হবে।

স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট » https://svmcm.wbhed.gov.in/

অবশ্যই পড়ুন » SVMCM Utilization Certificate: স্কলারশিপে লাগছে নতুন সার্টিফিকেট! টাকা পেতে দিতেই হবে, নতুন আপডেট বিকাশ ভবনের

আমাদের হোয়াটসঅ্যাপটেলিগ্রাম গ্রুপে যুক্ত হোন -

Join Group

Telegram